দ্বিতীয় নারীকেও এবার খুঁজে পেলেন রোনালদো

Sunday, September 22nd, 2019

আইটিভির সঙ্গে সেই সাক্ষাৎকারে রোনালদো। ছবি: মিরর টুইটার পেজআইটিভির সঙ্গে সেই সাক্ষাৎকারে রোনালদো। ছবি: মিরর টুইটার পেজ

ডেস্ক নিউজঃ ইতালিয়ান সিরি ‘আ’তে কাল হেলাস ভেরোনার বিপক্ষে ২-১ গোলে জিতেছে জুভেন্টাস। পেনাল্টি থেকে গোল করেছেন ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো। গোল পাওয়ার পাশাপাশি আরও একটি কারণে তাঁর এখন সময়টা ভালো কাটার কথা। পুরোনো দিনের স্নেহময়ীদের যে খুঁজে পাচ্ছেন তিনি।

ছেলেবেলায় ম্যাকডোনাল্ডসের একটি দোকানের সামনে রাতে বসে থাকতেন ক্ষুধার্ত রোনালদো এবং তাঁর সঙ্গী কিশোর ফুটবলাররা, বিক্রি না হওয়া বার্গার পাওয়ার আশায়। ম্যাকডোনাল্ডসের তিন নারী কর্মী দয়াপরবশ হয়ে রোনালদোদের খেতে দিতেন। কিছুদিন আগে ‘আইটিভি’কে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে সেই নারীদের সন্ধান চেয়েছিলেন পর্তুগিজ তারকা। এরপর পলা লেকা নামে এক নারীর সন্ধান মেলে। এবার মিলল আরেকজনের পরিচয়ও—সাক্ষাৎকারে এ নারীর নাম এডনা বলে উল্লেখ করেছিলেন জুভেন্টাস তারকা।

পাঁচবারের বর্ষসেরা এ ফুটবলার বলেছিলেন, সেই তিন নারীর সন্ধান পাওয়া গেলে লিসবন কিংবা তুরিনে তাঁদের ডিনার করাবেন। এদিকে পর্তুগিজ খেলাধুলাভিত্তিক সংবাদমাধ্যম ‘রেকর্ড’-এ নিজের পরিচয় দিয়েছেন এডনা। তাঁর নাম এডনা কারিনা এমানুয়েল কালদাস। রোনালদো তাঁকে খুঁজছেন, এ কথা জেনে শিহরিত ৩৬ বছর বয়সী এ নারী। এডনা বলেন, ‘খুব খুশি লাগছে। সে কত বিনয়ী তা এর মধ্য দিয়ে বোঝা যায়। আমি এমন কেউ না যে তার মতো কেউ আমাকে মনে রাখবে। কিন্তু এত বছর পরেও সে আমাকে মনে রাখবে তা ভাবতে পারিনি। এটা প্রমাণ করে দেয় সে কতটা ভালো মানুষ এবং জীবনের কত ক্ষুদ্র ক্ষুদ্র বিষয় সে মনে রাখে।’

ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম ‘মিরর’ জানিয়েছে, রোনালদোর ছেলেবেলায় তাঁর সঙ্গে বন্ধুত্বও হয়েছিল বলে দাবি করেন এডনা। জুভেন্টাস ফরোয়ার্ডের সঙ্গে তখন নাকি একবার কফিও খেতে গিয়েছিলেন। এর আগে পর্তুগিজ সংবাদমাধ্যম ‘রেনাঁসেসাঁ’ খুঁজে পায় পলা লেকাকে। রোনালদোর সেসব দিন নিয়ে পলা বলেন, ‘ওরা দোকানের কাউন্টারের সামনে ভিড় জমাতো। অতিরিক্ত বার্গার আছে কি না জানতে চাইত। আমরা তখন দোকানের ম্যানেজারের অনুমতি নিয়ে অবিক্রীত বার্গারগুলো দিয়ে দিতাম। ছেলেদের মধ্যে একজন ছিল রোনালদো। ও ছিল সবার মধ্যে রোগাপটকা । প্রায় প্রতি রাতেই এ ঘটনা ঘটত।’