বিতর্ক দেশে আপওয়ার্ক বন্ধ নিয়ে

Thursday, May 9th, 2019

আপওয়ার্কআপওয়ার্ক

ডেস্ক নিউজঃ দেশের অনেকেই ফ্রিল্যান্সার অনলাইন মার্কেটপ্লেস আপওয়ার্কে কাজ করেন। কিন্তু গতকাল বুধবার থেকেই যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক ওই সাইটে ঢুকতে পারছিলেন না দেশের ফ্রিল্যান্সাররা। অনেকেই ভেবেছিলেন, আপওয়ার্কের কারিগরি ত্রুটির কারণে তা হয়েছে। কিন্তু পরে আপওয়ার্ক কর্তৃপক্ষ জানায়, তাদের কোনো কারিগরি সমস্যা হয়নি। এটা স্থানীয় আইএসপি সমস্যার কারণে হয়েছে। স্থানীয় নেটওয়ার্কে তাদের ওয়েবসাইটটি ব্লক করা হয়েছে। আজ বৃহস্পতিবার দুপুর ১২টার দিকে সাইট স্বাভাবিক হয়েছে।

আপওয়ার্কের সূত্রে জানা যায়, আরকে rk (.) com নামে একটি অ্যাডাল্ট সাইট ব্লক করতে গিয়ে যেসব ওয়েবসাইটের অ্যাড্রেসের শেষে rk (.) com আছে, এমন সব সাইট (যেমন, upwork.com, wework.com, artwork.com, network.com, ইত্যাদি) ব্লক হয়ে করে ফেলা হয়েছে।

বাংলাদেশ টেলিকম অধিদপ্তর আপওয়ার্ক বা এ ধরনের কোনো সাইট বন্ধ করা হয়নি বলে জানায়।

বিষয়টি বাংলাদেশের ফ্রিল্যান্সিং কমিউনিটিতে ব্যাপক আলোচনার জন্ম দেয়। অনেকেই বিষয়টি নিয়ে সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে আলোচনা শুরু করেন।

ফ্রিল্যান্সার তারেক মাহমুদ বলেন, এ নিয়ে সবার মনে আতঙ্ক তৈরি হয়েছে। নানা গুজব ছড়িয়েছে। সবাই ভেবেছে, এ সাইট পুরোপুরি বন্ধ হয়ে গেছে।

আপওয়ার্কের মার্কেটিং ডেটা অপারেশন বিভাগের প্রধান সাইদুর মামুন খান বলেন, বাংলাদেশের অনেক আইপি থেকে আপওয়ার্কসহ আরকে ডটকমের অনেক সাইটে ঢোকা যাচ্ছিল না। আজ দুপুরে তা স্বাভাবিক হয়েছে। আপওয়ার্কের কোনো কারিগরি সমস্যা নেই। দেশে তা ব্লক হয়ে যায়।

বাংলাদেশ ইন্টারনেট সার্ভিস প্রোভাইডার অ্যাসোসিয়েশন সূত্রে বলেছে, বাংলাদেশ সরকারের টেলিকম অধিদপ্তর একটি নতুন প্রকল্প গ্রহণ করেছে, যার আওতায় সব ইন্টারনেট গেটওয়েতে DPI (Deep Packet Inspection) ডিভাইস বসানো হয়েছে। এতে এখান থেকে ট্রাফিক নিয়ন্ত্রণ করা যায়। প্রতিটি প্যাকেট তথ্য নজরদারির সুযোগ থাকে।

আইএসপিএবির সভাপতি আমিনুল হাকিম বলেন, কোনো সাইট বন্ধের বিষয়ে বিটিআরসি থেকে তাঁদের কিছু জানানো হয়নি।

টেলিকম অধিদপ্তরের যুগ্ম সচিব রফিকুল মতিন বলেন, দেশ থেকে আপওয়ার্ক নামের কোনো সাইট বন্ধ করা হয়নি।