তাইজুলের ঘুর্ণিতে বেঁচে থাকল ফলোঅনের আশা

Tuesday, November 13th, 2018


তাইজুলের দুর্দান্ত বোলিংয়ে ফলোঅনের ফাঁদে ফেলে জিম্বাবুয়েকে টানা দ্বিতীয়বার ব্যাটিংয়ে নামাবার আশা বাঁচিয়ে রাখল বাংলাদেশ। মঙ্গলবার তৃতীয় দিনের খেলা শেষে জিম্বাবুয়ের সংগ্রহ ৯ উইকেটে ৩০৪ রান। প্রথম ইনিংসে ৭ উইকেটে ৫২২ রান করে ইনিংস ঘোষণা করে বাংলাদেশ। তাই সফরকারীদের ফলোঅনে ফেলতে হলে আর ১৮ রানের মধ্যেই শেষ উইকেটের পতন ঘটাতে হবে স্বাগতিকদের।
মিরপুর স্টেডিয়ামে আগের দিনের এক উইকেটে ২৫ রান নিয়ে মঙ্গলবার তৃতীয় দিনে ফের প্রথম ইনিংসে ব্যাটিং শুরু করে জিম্বাবুয়ে। তবে দিনের শুরুতে তারা খুব একটা সুবিধা করতে পারেনি। মাত্র ১৩১ রানে ৫ উইকেট হারিয়ে রীতিমতো ব্যাটিং বিপর্যয়ে পড়ে যায় দলটি। প্রথম পাঁচ উইকেটের চারটিই নিজের ঝুলিতে ভরেন তাইজুল।
সেখান থেকে দলকে দারুণভাবে বের করে আনেন ব্রেন্ডন টেলর ও পিটার মুর। ষষ্ঠ উইকেটে এ দুজন এ দুজন ষষ্ঠ উইকেটে ১৩৯ রানের দুর্দান্ত জুটি গড়েন। এরপর দলীয় ২৭০ রানে মুর ৮৩ রান করে আউট হলেও সেঞ্চুরি পূর্ণ করেন টেলর। তবে সেঞ্চুরি করে দলীয় ২৯০ রানে আউট হয়ে যান টেলর। এর আগেই ১৯৪ বল থেকে ১০টি চারের মারে তিনি করেন ১১০ রান।
দলীয় স্কোরে আর কোনো রান যোগ হওয়ার আগেই ফিরে যান ব্রেন্ডন মাভুতা। আর সবশেষ দলীয় ৩০৪ রানে রেগিস চাকাভার বিদায় নেন। কোটায় আরো ১৫টি বল বাকি থাকলেও আম্পায়রদ্বয় ওখানেই দিনের খেলার সমাপ্তি টানেন। বাংলাদেশের বোলারদের মধ্যে তাইজুল ১০৭ রানে নেন ৫টি উইকেট। এছাড়া মেহেদি হাসান মিরাজ ৩টি ও আরিফুল হক নেন একটি করে উইকেট।
এর আগে ঢাকা টেস্টের দ্বিতীয় দিন সোমবার বিকেলে ৭ উইকেটে ৫২২ রান করে প্রথম ইনিংস ঘোষণা করে বাংলাদেশ। দলের পক্ষে মুমিনুল হক ১৬১ ও মুশফিকুর রহিম ২১৯ রানের একটি নান্দনিক ইনিংস খেলেন। এছাড়া মেহেদি হাসান মিরাজ ৬৮ রান করে অপরাজিত ছিলেন।
প্রথম টেস্টে পরাজয়ের কারণে সিরিজের ফলাফল বাঁচাতে এই টেস্টে জয়ের বিকল্প নেই স্বাগতিক বাংলাদেশের সামনে। সিলেটে সিরিজের প্রথম টেস্টে ১৫১ রানের বড় ব্যবধানে হারে স্বাগতিকরা।