১৬ই নভেম্বর, ২০১৮ ইং | ২রা অগ্রহায়ণ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ, হেমন্তকাল

ম্যাচের সঙ্গে সিরিজও হারলো ভারত

প্রকাশিতঃ সেপ্টেম্বর ৩, ২০১৮, ১০:৪৯ পূর্বাহ্ণ


জয়ের জন্য প্রয়োজন ২৪৫ রান। কিছুটা মামুলিই বলা যায়। এ মামুলি লক্ষ্যটাই পার করতে পারলো না ভারত। বিরাট কোহলি এবং আজিঙ্কা রাহানে ছাড়া আর কোনো ব্যাটসম্যানই দাঁড়াতে পারলো না ইংলিশ বোলারদের সামনে। শেষ পর্যন্ত ৬৯.৪ ওভার খেলে ১৮৪ রানে অলআউট হয়ে গেলো বিরাট কোহলি অ্যান্ড কোং।

সাউদাম্পটন টেস্টে ৬০ রানে পরাজয়ের সঙ্গে স্বাগতিক ইংল্যান্ডের কাছে সিরিজও হারলো ভারতীয়রা। ৫ ম্যাচের সিরিজে ৩-১ ব্যবধানে এগিয়ে গেলো ইংল্যান্ড। শেষ টেস্ট হেরে গেলেও সিরিজ ইংল্যান্ডেরই থাকবে।

নটিংহ্যাম টেস্টে ভারতের জয়ের পর দেশটির মিডিয়া যেন পুরো ক্রিকেট বিশ্বকে জানিয়ে দিয়েছিল, তারাই সবচেয়ে সেরা। ইংল্যান্ডের মাটিতে একটা টেস্ট জয় যেন সারা ক্রিকেট বিশ্বকেই জয় করে নিয়েছে তারা। বিরাট কোহলির ব্যাটিংয়ের সঙ্গে নেতৃত্বের তুমুল প্রসংশা। তার মত নেতা আর হয় না। পরের দুই টেস্টে যেন ইংল্যান্ডকে উড়িয়েই দেবে তারা। কিন্তু সাউদাম্পটনে এসে মুখ থুবড়ে পড়লো তারা।

জয়ের জন্য ২৪৫ রানের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে শুরুতেই ইংলিশ পেসের দাপটের মুখে পড়ে ভারতীয়রা। লোকেশ রাহুল বোল্ড হয়ে যান স্টুয়ার্ট ব্রডের বলে। এরপর বিদায় নেন প্রথম ইনিংসে অপরাজিত ১৩২ রান করা চেতেশ্বর পুজারাও। ওপেনার শিখর ধাওয়ান ফিরে যান এন্ডারসনের বলে।

২২ রানে ৩ উইকেট হারানোর পর ভারতীয় ইনিংসের হাল ধরেন বিরাট কোহলি আর আজিঙ্কা রাহানে। দু’জনের ব্যাটে গড়ে ওঠে ১০১ রানের বিশাল এক জুটি। কিন্তু এই জুটিও ভারতকে বাঁচাতে পারলো না। ৫৮ রান করে মঈন আলির ঘূর্ণি ফাঁদে পড়েন কোহলি। উইকেট দেন কুকের হাতে। এরপর হাফ সেঞ্চুরি করেন আজিঙ্কা রাহানেও। কিন্তু ৫১ রান করার পর সেই মঈন আলির ঘূর্ণি ফাঁদে পড়ে এলবিডব্লিউ হন।

হার্দিক পান্ডিয়া উইকেটে এসে দাঁড়াতেই পারেননি। বেন স্টোকসের বলে রুটের হাতে ক্যাচ দিয়ে ফিরে যান কোনো রান না করেই। রিশাভ পান্ত করেন ১৮ রান। আট নম্বর ব্যাটসম্যান হিসেবে আউট হন স্টোকসের বলে এলবি হয়ে, কোনো রান না করে। শেষ দিকে অশ্বিন চেষ্টা করেন একটু প্রতিরোধ গড়ার। ২৫ রান করেন তিনি। মোহাম্মদ শামি ৮ রান করে আউট হন মঈন আলির বলে। অশ্বিন আউট হন স্যাম কুরানের বলে।

স্পিনার মঈন আলি নেন ৪ উইকেট। প্রথম ইনিংসে নিয়েছিলেন ৫ উইকেট। দুর্দান্ত ব্যাটিং এবং বোলিংয়ের জন্য তিনি জেতেন ম্যাচ সেরার পুরস্কার। ২ উইকেট করে নেন এন্ডারসন আর বেন স্টোকস। ১ উইকেট করে নেন স্টুয়ার্ট ব্রড এবং স্যাম কুরান।

Leave a Reply

৯৭/৩/খ, উত্তর বিশিল, মিরপুর-১, ঢাকা-১২১৬
মোবাইলঃ ০১৭১২-৬৪৩৬৭৩, বার্তা বিভাগঃ ০১৭১২-৬৪৪৩৫০, সার্কুলেশন বিভাগঃ০১৯১৬০৯৯০২০
ইমেইলঃ [email protected], [email protected]

সম্পাদক:
মোঃ সুলতান চিশতী

ব্যবস্থাপনা সম্পাদকঃ
মহসিন হাসান খান (বুলবুল)

নির্বাহী সম্পাদকঃ
মোঃ ইব্রাহিম হোসেন

সহকারী সম্পাদকঃ
মোঃ আতোয়ার হোসেন

আইন উপদেষ্টাঃ
শাহিন সরকার


.: Developed By :.
Great IT