২৪শে সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ইং | ৯ই আশ্বিন, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ, শরৎকাল

প্রশ্নপত্র ফাঁসের চেষ্টা করা হলে কাউকে রেহাই দেওয়া হবে না : শিক্ষামন্ত্রী

প্রকাশিতঃ ফেব্রুয়ারি ১, ২০১৮, ১২:৪১ অপরাহ্ণ


প্রশ্নপত্র ফাঁসের চেষ্টা করা হলে কাউকে রেহাই দেওয়া হবে না বলে জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী নরুল ইসলাম নাহিদ।

বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ১০টায় রাজধানীর ধানমন্ডি গভর্নমেন্ট ল্যাবরেটরি হাইস্কুলে এসএসসি পরীক্ষা কেন্দ্র পরিদর্শনে শেষে তিনি সাংবাদিকদের এ কথা বলেন।

এসময় তিনি বলেন,প্রশ্নপত্র ফাঁস রোধে আমরা ইতিমধ্যেই অনেক ব্যবস্থা গ্রহণ করেছি। এইগুলোর সব এখন বলতে চাচ্ছি না। এ ছাড়া গোয়েন্দা বাহিনীগুলোও এ ব্যাপারে সক্রিয় রয়েছে।

নরুল ইসলাম নাহিদ বলেন, প্রশ্নপত্র ফাঁস রোধে একটি প্রতিষ্ঠানের পক্ষে এবং মানুষের পক্ষে যা যা করা সম্ভব আমরা তা করেছি। হেন কোনো ব্যবস্থা নেই যে আমরা গ্রহণ করিনি। আমরা কঠোর অবস্থান গ্রহণ করেছি। তার পরও যদি কেউ প্রশ্নপত্র ফাঁস বা ফাঁসের চেষ্টা করে তাহালে তার বিরুদ্ধে কী ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে আমি নিজেও জানি না।

তার পরও যদি কোনো পরীক্ষার প্রশ্নপত্র ফাঁস হয়ে যায় সেই পরীক্ষাটি বাতিল করা হবে বলেও মন্ত্রী জানান।

দেশের রাজনৈতিক দলগুলোর উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, সকলের কাছে অনুরোধ জানাচ্ছি, এরা আমাদের দেশের ভবিষ্যৎ। তাদের জীবন নষ্ট হলে জাতির ভবিষ্যৎ নষ্ট হয়ে যাবে। তাই এমন কিছু করবেন না যাতে করে পরীক্ষা নিতে সমস্যা হয়।

তবে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার দুর্নীতি মামলার রায়কে কেন্দ্র করে যদি দেশে কোনো অস্থিতিশীল পরিস্থিতির সৃষ্টি হয় তার পরও সুষ্ঠুভাবে পরীক্ষা চলবে বলেও শিক্ষামন্ত্রী জানিয়েছেন।

এদিকে, প্রশ্ন ফাঁস ঠেকাতে নজিরবিহীন কঠোর পরিবেশের মধ্যে এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় তিন হাজার ৪১২টি কেন্দ্রে বসেছে ২০ লাখ ৩১ হাজার ৮৮৯ জন পরীক্ষার্থী। এর মধ্যে ১০ লাখ ২৩ হাজার ২১২ জন ছাত্র এবং ছাত্রীর সংখ্যা ১০ লাখ ৮ হাজার ৬৮৭ জন।

শিক্ষার্থীদের পরীক্ষা শুরুর ৩০ মিনিট পূর্বে অবশ্যই কেন্দ্রে উপস্থিত হয়ে আসনে বসা বাধ্যতামূলক করেছে শিক্ষা মন্ত্রণালয়। এক্ষেত্রে কোনো ধরনের অজুহাত গ্রহণযোগ্য হবে না।

কোনো পরীক্ষার্থী পরীক্ষা শুরুর ৩০ মিনিট আগে পরীক্ষার হলে প্রবেশ না করলে তাকে আর পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে দেয়া হবে না বলেও জানানো হয়েছে।

এ বছর সারাদেশে অভিন্ন ও সৃজনশীল প্রশ্নপত্রে পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। এবার বাংলা দ্বিতীয় পত্র এবং ইংরেজি প্রথম ও দ্বিতীয় পত্র ছাড়া সকল বিষয়ে সৃজনশীল প্রশ্নে পরীক্ষা নেওয়া হচ্ছে।

নিরাপত্তা ও নকলমুক্ত পরিবেশে পরীক্ষা নিতে পরীক্ষা চলাকালীন রাজধানীর কেন্দ্রগুলোর ২০০ গজের অভ্যন্তরে জনসাধারণের প্রবেশ নিষিদ্ধ করেছে ঢাকা মহানগর পুলিশ (ডিএমপি)।

জানা গেছে, ২০১৭ সালে এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় মোট ১৭ লাখ ৮৬ হাজার ৬শ ১৩ জন পরীক্ষার্থী অংশ নিয়েছিল। গত বছরের চেয়ে এবার পরীক্ষার্থী বেড়েছে ২ লাখ ৪৫ হাজার ২৮৬ জন।

Leave a Reply

৯৭/৩/খ, উত্তর বিশিল, মিরপুর-১, ঢাকা-১২১৬
মোবাইলঃ ০১৭১২-৬৪৩৬৭৩, বার্তা বিভাগঃ ০১৭১২-৬৪৪৩৫০
ইমেইলঃ [email protected], [email protected]

সম্পাদক:
মোঃ সুলতান চিশতী

ব্যবস্থাপনা সম্পাদকঃ
মহসিন হাসান খান (বুলবুল)

নির্বাহী সম্পাদকঃ
মোঃ ইব্রাহিম হোসেন

সহকারী সম্পাদকঃ
মোঃ আতোয়ার হোসেন

আইন উপদেষ্টাঃ
শাহিন সরকার


.: Developed By :.
Great IT