২৬শে সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ইং | ১১ই আশ্বিন, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ, শরৎকাল

ট্রলকে পাত্তা দিই না, আনুশকার কড়া জবাব

প্রকাশিতঃ আগস্ট ১৩, ২০১৮, ৭:৫২ অপরাহ্ণ


আনুশকা শর্মা যে ভারতীয় ক্রিকেট দলের সহ-অধিনায়ক হয়েছে জানতাম না তো! এমনই ভাষ্য ছিল একটি টুইটের। আরেকজন লিখেছেন, আনুশকা শর্মা কি ভারতীয় দলে যোগ দিয়েছেন? পরের ম্যাচটা কি খেলবেন? কী করেন তিনি, ব্যাট, নাকি বল?

কদিন আগে ইংল্যান্ড সফররত ভারতীয় দলকে সংবর্ধনা দেয় দেশটির লন্ডনের হাইকমিশন। সেখানে ভারতীয় ক্রিকেট দলের সব ক্রিকেটার ছাড়াও কোচিং স্টাফের সবাই ছিলেন। আর ছিলেন আনুশকা শর্মা। বলিউড তারকা ভারত অধিনায়ক বিরাট কোহলির স্ত্রী। ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড সেদিনের একটি গ্রুপ ছবি টুইট করলে সমালোচনা শুরু হয়ে যায়। কেউ কেউ দাবি করেন, এতে করে নিয়মনীতির লঙ্ঘন হয়েছে।

টুইটারের সমালোচনার মূল বক্তব্য দুটি। ভারতীয় দলকে জানানো আমন্ত্রণে আনুশকা কী করছেন? আর আনুশকা যদি যাবেনই, ভারতীয় ক্রিকেটারদের আরও অনেকের স্ত্রী বা বান্ধবী তো ছিলেন। তাঁদের ডাকা হলো না কেন। অনেকের দাবি, এ ধরনের একটি অফিশিয়াল আমন্ত্রণে ভারতীয় দলের অংশ নন এমন কেউ (আনুশকা) অংশ নেওয়া নীতিবিরুদ্ধ।

চার-পাঁচ দিন ধরে টুইটার গরম করে রেখেছিলেন টুইটার ব্যবহারকারীরা। পক্ষে-বিপক্ষে বেশ আলোচনা জমে উঠেছিল। কোহলি আর আনুশকাকে নিয়ে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে শোরগোল এই প্রথম নয়। ২০১৫ বিশ্বকাপে ব্যর্থতার পর অনেকেই কোহলির সফরসঙ্গী আনুশকাকে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে লক্ষ্য বানিয়েছিলেন। আনুশকার এখন এসব সয়ে গেছে। এ কারণেই এসব আলোচনা-সমালোচনায় গা করেননি।

তবে আজ বিষয়টি এড়িয়ে যেতে পারেননি। মুম্বাইয়ে নিজের নতুন ছবি ‘সুই ধাগা’র প্রচারণার সময় এক সাংবাদিকের প্রশ্নের জবাবে আনুশকা বলেছেন, ‘যার ব্যাখ্যা দেওয়ার দরকার, তার ব্যাখ্যা এরই মধ্যে দেওয়া হয়েছে। এটা স্রেফ ট্রল (সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে বিদ্রূপ) করা। আমি এসব গুরুত্ব দিই না। যা হয়েছে, নিয়মনীতি মেনেই হয়েছে। ভবিষ্যতে যা হবে, সেটিও নিয়মনীতি মেনেই হবে। যা নিয়ে বিতর্ক হচ্ছে, এর কোনো ভিত্তি নেই।’

এর আগে ভারতের একটি শীর্ষ দৈনিক জানিয়েছিল, ভারতীয় হাইকমিশনই আনুশকা শর্মাকেও ওই অনুষ্ঠানে আমন্ত্রণ জানায়। সেটি শুধু ভারত অধিনায়কের স্ত্রী হিসেবে নয়। আনুশকা নিজেও ভারতের বড় ব্যক্তিত্বদের একজন। নিজের যোগ্যতা দিয়েই তিনি সম্মানিত হয়েছেন।

Leave a Reply

৯৭/৩/খ, উত্তর বিশিল, মিরপুর-১, ঢাকা-১২১৬
মোবাইলঃ ০১৭১২-৬৪৩৬৭৩, বার্তা বিভাগঃ ০১৭১২-৬৪৪৩৫০
ইমেইলঃ [email protected], [email protected]

সম্পাদক:
মোঃ সুলতান চিশতী

ব্যবস্থাপনা সম্পাদকঃ
মহসিন হাসান খান (বুলবুল)

নির্বাহী সম্পাদকঃ
মোঃ ইব্রাহিম হোসেন

সহকারী সম্পাদকঃ
মোঃ আতোয়ার হোসেন

আইন উপদেষ্টাঃ
শাহিন সরকার


.: Developed By :.
Great IT